নতুন মাত্রা পত্রিকার অনলাইন ভার্সন (পরীক্ষামূলক সম্প্রচার)

 ঢাকা      রবিবার ১৪ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১লা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মিথ্যা ও মানহানিকর বক্তব্য প্রদানের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলণ করেছে সদর উপজেলা চেয়ারম্যান

বার্তা সম্পাদক

প্রকাশিত: ১০:২৬ পূর্বাহ্ণ , ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, মঙ্গলবার , পোষ্ট করা হয়েছে 3 years আগে

ব্রাহ্মনবাড়িয়া প্রতিনিধি : ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সুলতানপুরে স্বপন হত্যাকান্ডকে কেন্দ্র করে সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ফিরোজুর রহমান ওলিও এবং সুলতানপুর ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ওমর ফারুকের বিরুদ্ধে মিথ্যা ও মানহানিকর বক্তব্য প্রদানের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলণ হয়েছে। আজ মঙ্গলবার দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব মিলনায়তনে এই সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সদর উপজেলা চেয়ারম্যান ফিরোজুর রহমান ওলিও। তিনি উল্লেখ করেন, মানবসেবা ও সমাজসেবার মাধ্যমেই তিনি সুদীর্ঘ বছর সুলতানপুর ইউনিয়েনের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। স্বচ্ছতা রয়েছে বলেই পরবর্তীতে সদর উপজেলার চেয়ারম্যান হিসেবেও নির্বাচিত হয়েছেন। তবে ইউনিয়ন নির্বাচনকালীন সময়ে সুলতানপুর ইউপির হাবলাউচ্চ গ্রামের প্রয়াত মতিউর রহমান তার কাছে বার বার পরাজিত হন। পরাজয়ের যন্ত্রনা থেকেই প্রয়াত মতিউর রহমানের পরিবারের সদস্যরা তাদের অনুসারীদের দিয়ে স্বপন হত্যাকান্ডের সাথে তিনি ও তার ছেলে ইউপি চেয়ারম্যান ওমর ফারুকের নাম জড়াতে উঠে পড়ে লেগেছে। ইতিমধ্যে স্বপন হত্যাকান্ডের ঘটনায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে গ্রেফতারকৃত শফিকুল ইসলাম হৃদয়ের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে ঘটনার মূল রহস্য উদঘাটিত হয়েছে। সেখানে তিনি ও তার ছেলের কোন সম্পৃক্ততা পাওয়া যায়নি। তারপরও ওই মহলটি মিথ্যা ও বানোয়াট বক্তব্য প্রচার করে মানহানি করছে। গ্রেফতারকৃত শফিকুল ইসলাম হৃদয়ের মা নারী ইউপি সদস্য ইশরাত জাহান গত ১৩ ই সেপ্টেম্বর সংবাদ সম্মেলন করে যে বক্তব্য দিয়েছেন তা মিথ্যা ও বানোয়াট বলে উল্লেখ করেন পাশাপাশি বিরামপুর গ্রামের মতিলাল চৌধুরী তার ছোট ভাই সাধন চৌধুরীকে জড়িয়ে যে বক্তব্য দিয়েছেন তান তীব্র নিন্দা জানান এবং মানহানিকর ঘটনার বিচারের দাবী করেন। এ সময় তার সাথে সুলতানপুর ইউনিয়নের জনপ্রতিনিধিসহ বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আর্কাইভ

April 2024
M T W T F S S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
2930  
আরও পড়ুন
অনুবাদ করুন »